রাজ্য

ভোট হিংসা! নিজের দুর্গেই আক্রান্ত শুভেন্দু ভ্রাতা সৌমেন্দু, ভাঙলো গাড়ি, আহত ড্রাইভার

নিজের ঘরেই আক্রান্ত হলেন নন্দীগ্রামের বিজেপি প্রার্থী শুভেন্দু অধিকারীর কনিষ্ঠ ভ্রাতা সৌমেন্দু অধিকারী। পূর্ব মেদিনীপুরের সাবাজপুট এলাকায় আক্রান্ত হন সৌমেন্দু অধিকারী। তাঁর অভিযোগ, শাসক দল তৃণমূলের আশ্রিত প্রায় ৩০ জন দুষ্কৃতী ব্যাপক ভাঙচুর চালায় তাঁর গাড়িতে। মারধর করা হয় সৌমেন্দু’র গাড়ির চালককে। অভিযুক্তদের কড়া শাস্তির দাবি জানিয়েছেন এই তৃণমূল ত্যাগী বিজেপি নেতা। তিনি জানিয়েছেন, অভিযুক্তদের গ্রেপ্তার না করা পর্যন্ত ঘটনাস্থল ছাড়বেন না তিনি।

আরও পড়ুন – বিজেপির হয়ে মাঠে নামছেন মহারাজ? নতুন তথ্য জানালেন বিজেপি’র বর্ষীয়ান নেতা

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, আজ থেকে শুরু হয়েছে বাংলায় বিধানসভা নির্বাচন। প্রথম

দফার ভোটগ্রহণ হচ্ছে আজ। ভোটগ্রহণ শুরু হ‌ওয়ার পর থেকেই রাজ্যের একাধিক বুথ থেকে অশান্তির খবর প্রকাশ্যে আসে। হাতাহাতির ঘটনা ঘটে। শালবনিতে আক্রান্ত হন বামপ্রার্থী।

আর এইসব ঘটনার মাঝেই আক্রান্ত হন অধিকারী পরিবারের ছোট ছেলে।

সূত্রের খবর, প্রার্থীর নির্বাচনী এজেন্ট হওয়ায় এদিন সকালে একাধিক বুথে গিয়ে পরিস্থিতি খতিয়ে দেখছিলেন তিনি। জানা গিয়েছে, একটি বুথে যাওয়ার সময়‌ই আচমকা তাঁর ওপর হামলা চালায় দুষ্কৃতীরা। ব্যাপক ভাঙচুর করা হয় তাঁর গাড়িতে। মারধর করা হয় তাঁর গাড়ির চালক গোপাল সিংকে। চোখের পাশে, হাতে চোট লাগে তাঁর।

আরও পড়ুন –‘নন্দীগ্রামে জিতিয়ে দিতে হবে’, বিজেপি নেতাকে ফোনে আবদার মমতার!

সৌমেন্দুর অভিযোগ, তৃণমূল আশ্রিত দুষ্কৃতীরা হামলা পরিকল্পনামাফিক হামলা চালিয়েছে তাঁর গাড়িতে। কাঁথি থানার আইসিকে দালাল বলে কটাক্ষ করে তিনি বলেন,  “কাঁথি থানার আইসি সকাল থেকে বুথে বুথে গিয়ে ভোট করানোর চেষ্টা করছে দালালের মতো। আসলে তৃণমূল বুঝে গিয়েছে হার নিশ্চিত। তাই এই এসব করছে।” 

 

Back to top button
%d bloggers like this: